মূল Insync (উদ্ভট বাংলা টিপস) এই এই রাশির জাতক-জাতিকাদের ভুলেও একে-অপরের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়!

এই এই রাশির জাতক-জাতিকাদের ভুলেও একে-অপরের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়!

এই এই রাশির জাতক-জাতিকাদের ভুলেও একে-অপরের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়!

অনেকে বিশ্বাস করেন না ঠিকই। কিন্তু আমাদের জীবনে ঘটতে চলা বা ঘটে যাওয়া প্রতিটি ঘটনার সঙ্গেই যে আমাদের রাশির একটা যোগ রয়েছে সে বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। শুধু তাই নয়, আমাদের স্বাভাব, আমাদের পছন্দ-অপছন্দ সব কিছুই অনেকাংশে রাশির উপর নির্ভর করে থাকে। তাই তো বলি বন্ধু, অ্যাস্ট্রোলজির উপর বিশ্বাস রাখুন বা না রাখুন, অন্তত বিয়ের আগে জেনে নেওয়া উচিত আপনার রাশির সঙ্গে আপনার জীবনসঙ্গীর রাশির মিল হচ্ছে কিনা। কারণ এমনটা না করলে কিন্তু জীবন নরক হয়ে উঠতে সময় লাগবে না।

এখন প্রশ্ন হল কোন কোন রাশির মধ্যে একেবারে মিল হয় না? এই প্রশ্নের উত্তর যদি পেতে চান এবং সেই সঙ্গে যদি জেনে নিতে চান আপনি যাকে ভালবাসেন তার সঙ্গে আপনার রাশির মিল আছে কিনা, তাহলে বাকি লেখাটি পড়তে ভুলবেন না যেন!

১. মেষরাশি:

১. মেষরাশি:

আপনি সাহসী, স্বাধীনচেতা এবং অ্যাডভেঞ্চার প্রেমী। তাই তো ভুলেও আপনার মতো মানুষের বৃষরাশির জাতক-জাতিকাদের বিয়ে করা উচিত নয়। কারণ আপনার চরিত্রের একেবারে বিপরীত মেরুতে দাঁড়িয়ে রয়েছে এরা। তাই তো বৃষরাশির কাউকে ভালবেসে ফেললে প্রথমে ভাল লাগলেও পরে গিয়ে কিন্তু মতপার্থক্য দেখা দেবেই। তাই বিষয়টা খেয়াল রাখা একান্ত প্রয়োজন।

২. বৃষরাশি:

২. বৃষরাশি:

আপনাদের দূরে থাকতে হবে ধনুরাশির জাতক-জাতিকাদের থেকে। কারণ আপনার যতটা প্র্যাকটিকাল, এরা ততটাই স্বপ্নের দেশে থাকতে ভালবাসেন। শুধু তাই নয়, এরা বদরাগী এবং বেজায় স্বার্থপর গোছের হন। এমনকি সরল মানুষদের সঙ্গে মাইন্ড গেম খেলতেও এরা পিছপা হন না। তাই তো বলি বন্ধু, আপনারা যদি সুখে-শান্তিত থাকতে চান, তাহলে ধনুরাশির কাউকে ভালবেসে ফেলবেন না যেন!

৩. মিথুনরাশি:

৩. মিথুনরাশি:

আপনার সারাক্ষণ নতুন কিছু খোঁজে থাকেন। কি তাই না? আর এমন “ফান লাভিং” মানুষদের মটেও উচিত নয় মকররাশির জাতক-জাতিকাদের বিয়ে করা। কারণ এরা বেজায় অলস গোছের হন। “করছি করবো” বলেই সারা দিন কাটিয়ে দেন, যেখানে আপনি হলেন এরজন এনার্জেটিক মানুষ। তাই কী করে মিল হবে বলুন! আর ঠিক এই কারণেই মিথুনদের সারাক্ষণ মকরদের থেকে দূরে থাকাই ভাল।

৪. কর্কটরাশি:

৪. কর্কটরাশি:

আপনি সরল মনের মানুষ। আনন্দে থাকতে এবং আনন্দে রাখতে আপনার জুড়ি মেলা ভার। সেই সঙ্গে টাকা খরচের সময় আপনার কোনও দিকে খেয়াল থাকে না। এমন ফ্রি স্পিরিটের সঙ্গে মোটেও বিয়ে হওয়া উচিত নয় কুম্ভরাশির। কারণ এরা হিসেবি। সময় এবং টাকা খুব হিসেব করে খরচ করেন এরা। মধ্যা কথা আপনার থেকে একেবারেই আলাদা এরা। তাই কর্কটরাশিরা যেন ভুলেও কুম্ভরাশির মানুষদের পেমে পরে যাবেন না যেন! প্রসঙ্গত, কর্কটরাশির সঙ্গে ধনুরাশিরও খুব একটা মিল হয় না কিন্তু!

৫. সিংহরাশি:

৫. সিংহরাশি:

আপনি জানেন কীভাবে নিজেকে খুশি রাখতে হয়। মন চাইলে শপিং। চুটিয়ে কাজ করা এবং লাইমলাইটে থাকাই আপনার বেশি পছন্দের। তাই তো এমন মানুষদের ভুলেও কখনও বৃশ্চিকরাশির জাতক-জাতিকাদের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়। কারণ বৃশ্চিকরাশির মানুষেরা কারও প্রশংসা করেন না। উল্টে সারাক্ষণ ভুল ধরে যান। আর আপনি আপনার আশেপাশের মানুষদের মুখে নিজের প্রশংসা শুনতে অভ্যস্ত। তাহলে বলুন কীভাবে মিলমিশ হবে আপনার সঙ্গে বৃশ্চিকের!

৬. কন্যারাশি:

৬. কন্যারাশি:

আপনারা সারাক্ষণ লোকেদের সাহায্য করতে প্রস্তুত থাকেন। এমনকি ক্রিয়েটিভ মানসিকতার হওয়ার কারণে আপনি বেজায় ধীরস্থির, চিন্তাশীল। তাই তো আপনাদের ভুলেও ধনুরাশির জাতক-জাতিকাদের “মনের মানুষ” হিসেবে ভেবে নেওয়া উচিত নয়। কার এরা চঞ্চল, রাগি এবং অবশ্যই স্বার্থপর। সহজ কথায় বললে আপনি উত্তর মেরুতে থাকলে, স্বাভাবের দিক থেকে ধনুরাশিরা দক্ষিণ মেরুর বাসিন্দা।

৭. তুলারাশি:

৭. তুলারাশি:

যে স্বাধীন, সে কখনও বন্দি হতে চাইবে কি? আর ঠিক এই কারণেই তুলরাশির জাতক-জাতিকাদের কন্যারাশিদের থেকে যতটা সম্ভব দূরে থাকাই শ্রেয়। না হলে কিন্তু ঝগড়া বাড়বে। আর এমন অসস্তিকর পরিস্থিতিতে কারও পক্ষেই খুশি মনে বেঁচে থাকাটা যে সম্ভব নয়, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

৮. বৃশ্চিকরাশি:

৮. বৃশ্চিকরাশি:

ধরে নিন আপনারা শত চেষ্টা করেও মনের মতে জীবনসঙ্গীর খোঁজ পাচ্ছেন না। তবুও মেষরাশির জাতক-জাতিকাদের সঙ্গে ভালবাসার সম্পর্কে জড়াতে যাবেন না যেন! কারণ এদের চরিত্র, তাতে বৃশ্চিকরাশিদের মাঝে মধ্যেই মনে হতে পারে আপনার জীবনসঙ্গী আপনাদের নাকে দড়ি দিয়ে ঘোরাচ্ছে। আর কোনও সম্পর্কে এমন ভাবনা আসা যে উচিত নয়, তা আর কি বলার অপেক্ষা রাখে!

৯. ধনুরাশি:

৯. ধনুরাশি:

আর যাকেই বিয়ে করুন না কেন ভুলেও বৃষরাশির জাতক-জাতিকাদের ভালবসাতে যাবেন না যেন! কারণ আপনাদের থেকে একেবারে বিপরীত চরিত্রের হন এরা। আর গল্পে-সিনেমায় ডায়লগ হিসেবে “অপোজিট অ্যাট্রাক্টস”, কথাটা শুনতে ভাল লাগলেও বাস্তব জীবনের ছবিটা কিন্তু অন্য!

১০. মকররাশি:

১০. মকররাশি:

আপনারা সাধারণত কেয়ারিং এবং মন থেকে বেজায় সরল মনের মানুষ হন। শুধু তাই নয়, কাজকে ভাসবাসার কারণে কেরিয়ারে একের পর শৃঙ্গ জয় করাই আপনার একামাত্র লক্ষ। তাই তো এমন মানুষদের মিথুনরাশি জাতক-জাতিকাদের থেকে যতটা সম্ভব দূরে থাকেই ভাল।

১১. কুম্ভরাশি:

১১. কুম্ভরাশি:

আপনারা একটু প্রটেকটিভ মানসিকতার হন। ভালবাসার মানুষকে নিরাপত্তার ঘেরাটোপে রাখতে চান সারাক্ষণ। তাই তো এমন মানুষ আপনার পছন্দ, যে আপনার এমন মানসিকতাকে বুঝবে এবং একই রকমভাবে আপনাকেও কেয়ার করবে। আর ঠিক এই কারণেই কুম্ভরাশির জাতকদের ভুলেও কর্কটরাশির অধিকারীদের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়।

১২. মীনরাশি:

১২. মীনরাশি:

রোমান্টিক এবং স্বপ্নালু মানসিকতার হন এরা। শুধু তাই নয়, বাস্তবের সঙ্গে এদের “দূর দূর তাক” কোনও যোগ থাকে না। তাই তো এমন মানুষদের কন্যারাশি জাতক বা জাতিকার সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়।

এই এই রাশির জাতক-জাতিকাদের ভুলেও একে-অপরের সঙ্গে বিয়ে করা উচিত নয়!

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here